ঢাকাসোমবার , ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২২
  1. Bangla
  2. chomoknews
  3. English
  4. অপরাধ
  5. অভিনন্দন
  6. আমাদের তথ্য
  7. কবিতা
  8. কর্পরেট
  9. কাব্য বিলাস
  10. কৃষি সংবাদ
  11. খুলনা
  12. খোলামত
  13. গল্প
  14. গাইড
  15. গ্রামবাংলার খবর

সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর কুলখানি অনুষ্ঠিত

abu naser
সেপ্টেম্বর ১৯, ২০২২ ১২:৪২ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর কুলখানি অনুষ্ঠিত

ফরিদপুর ব্যুরো: বর্ষীয়ান রাজনীতিক, আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলির সদস্য, সংসদ উপনেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর কুলখানি অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) বাদ আসর জাতীয় সংসদের এলডি হল চত্বরে সংসদ উপনেতার কুলখানি অনুষ্ঠিত হয়।

এর আগে সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, ‘শোকাবহ এক পরিবেশে এখানে আমরা সবাই মিলিত হয়েছি। আমাদের পরম অভিভাবক, জাতির অভিভাবক সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীকে আমরা হারিয়েছি। তার স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে আমরা একত্রিত হয়েছি।’

তিনি বলেন, ‘অনেক বিশেষণে তাকে আমরা বিশেষায়িত করতে পারি। তিনি সারা জীবন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে অবিচল ছিলেন। আদর্শে তার এই অবিচল মনোভাব প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে অনুসরণ যোগ্য। আমাদের যাদের বয়স কম, আমরাও তার সান্নিধ্য পেয়েছি, এজন্য নিজেদের ধন্য মনে করি। ৭৫ পরবর্তী দুঃসময়, ১/১১ এর সময়ে তিনি যে ভূমিকা রেখেছেন তা স্মরণীয়।’

স্পিকার বলেন, ‘গণতান্ত্রিক সব আন্দোলনে তিনি অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছেন। সাজেদা চৌধুরীর আদর্শ, রাজনৈতিক প্রজ্ঞা ও দূরদর্শিতা প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে অনুপ্রেরণা যোগাবে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঘনিষ্ঠ সহযোগীর পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে তার সুদীর্ঘ পথচলা।’

কুলখানিতে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, সংসদের প্রধান হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী, আওয়ামী লীগে বিভিন্ন স্তরের নেতা-কর্মী অংশ নেন।

কুলখানি ও দোয়া অনুষ্ঠানে সাজেদা চৌধুরীর ছোট ছেলে শাহদাব আকবর চৌধুরী লাবু বলেন, ‘মা আমাদের শিখিয়েছিলেন, আওয়ামী লীগ আমাদের পরিবার।  মা আজ  নেই। তার আদর্শ আমাদের রক্তে।’

অনুষ্ঠানে প্রয়াত সংসদ উপনেতার বড় ছেলে আয়মান আকবর চৌধুরী বাবলু, মেজ ছেলে সাজেদ আকবর চৌধুরী ও মেয়ে শামা রহমান বক্তব্য রাখেন।

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলির সদস্য, সাবেক মন্ত্রী, বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী গত ১১ সেপ্টেম্বর মারা যান। তার বয়স হয়েছিল ৮৭ বছর। ফরিদপুর-২ (নগরকান্দা) আসনে ৬ বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন সাজেদা চৌধুরী।

পঁচাত্তরে বঙ্গবন্ধুর হত্যাকাণ্ডের পর আওয়ামী লীগের দুঃসময়ে দলের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব নিয়েছিলেন সাজেদা চৌধুরী। শেখ হাসিনা আওয়ামী লীগের সভাপতি হয়ে দেশে ফেরার পর তার সঙ্গেও সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

১৯৮৬ থেকে ১৯৯২ পর্যন্ত আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালনের পর ১৯৯২ সাল থেকে মৃত্যু পর্যন্ত তিনি আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলিতে ছিলেন।

তার কুলখানীতে ফরিদপুরে সাজেদা চৌধুরীর নির্বাচনি এলাকার নেতাকর্মীসহ  মানুষজন অংশ নেন।

স/এষ্