কিশোরগঞ্জ থেকে মোঃ আশরাফ আলী : কিশোরগঞ্জ জেলা শারদীয় দূর্গোৎসব খ্রিঃ ২০১৬ পূণর্মিলনী, পুরষ্কার ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা, অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল্লাহ আল মাসউদ, কালীবাড়ী মন্দিরে মিলনায়তনে শ্রীশ্রী কালী বাড়ীর শ্রীঅঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন- কিশোরগঞ্জ জেলা গণতন্ত্রী পার্টির সভাপতি এডভোকেট ভূপেন্দ্র ভৌমিক দোলন (হিন্দু কল্যাণ ট্রাস্টি), এডভোকেট এম.এ আফজল জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সহ সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু, কিশোরগঞ্জ পৌর মেয়র মোঃ পারভেজ মিয়া, অধ্যক্ষ রবীন্দ্রনাথ চৌধুুরী, হিন্দু কল্যাণ ট্রাস্টি লিপন রায় লিপু, জেলা পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি এডভোকেট বিজয় শংকর রায়, সাধারণ সম্পাদক নারায়ণ দত্ত প্রদীপ, সামাজিক আন্দোলনের সভাপতি এডভোকেট অশোক সরকার।
বক্তারা বলেন- দূর্গাপূজার শুরুতেই নাসিরনগরসহ বিভিন্ন এলাকায় প্রতীমা ভাঙ্গায় দেশের হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে ভীতি ও আতংক সৃষ্টি হওয়ায় আইন শৃঙ্খলার নিরাপত্তার স্বার্থে ২০১৬ সালে অনুষ্ঠিত দূর্গাপূজা পূর্ণমিলন অনুষ্ঠান কিছুটা বিলম্ব হয়েছে। সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু বলেন- সর্ব বৃহৎ জনগোষ্ঠি মুসলিম সম্প্রদায়, সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়, খ্রিস্টান সম্প্রদায়, বৌদ্ধ সম্প্রদায়সহ বিভিন্ন উপজাতি নিয়ে এই সুন্দর বাগান বাংলাদেশ নামে পরিচিত। ৭১ সালে স্বাধীনতার পর আমাদের পিছে হায়ানা, জঙ্গিগোষ্ঠী লেগে রয়েছে। তাদের উদ্দেশ্যে হলো শান্তিপূর্ণ দেশকে অস্থির করে রাখা। আপনাদের দায়িত্ব তাদেরকে ধরিয়ে দেয়া এবং নিজে সতর্ক থাকা। আপনাদের সহযোগিতা থাকলে অচিরেই ৭২ সালের সংবিধান বাস্তবায়িত হবে। এরপরে সদর উপজেলা দূর্গোৎসবে শ্ঙ্খৃলা, সৌন্দর্য মূল্যায়ন করে তাদেরকে পুরষ্কার বিতরণ করা হয় এবং সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি বজায় রাখার আহ্বান করা হয়।

স/ এষ্

         
print
Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন