আবু নাসের হুসাইন, সালথা (ফরিদপুর) প্রতিনিধি:

ফরিদপুরের সালথা উপজেলার আটঘর ইউনিয়নের শ্রীফলতলী গ্রামে সংখ্যালঘু সঞ্জিত কুমার মিত্র’র পরিবারের উপর হামলা করেছে প্রভাবশালীরা। শনিবার রাত আনুমানিক সাড়ে ৮টার দিকে এ হামলার ঘটনা ঘটে। সঞ্জিত কুমার ঐ গ্রামের মৃত কালি শংকর মিত্র’র ছেলে। এব্যাপারে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের হয়েছে।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, শ্রীফলতলী বৈশাখী মেলায় দাওয়াত না পাওয়ায় একই গ্রামের প্রভাবশালী হাদিস মিয়ার সমর্থক ইকরাম, সাদ্দাম, মুক্তার, আরিফ ও রুবেলসহ ১০/১২ জন লোক সঞ্জিত কুমার মিত্রর বাড়িতে হামলা চালায়। এসময় পুরো বাড়িতে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। সঞ্জিত কুমারের মা সবিতা রানী মিত্র, স্ত্রী সুমা মিত্র, ছোট ভাই সজল মিত্র ও পার্শ্ববতী শিখা রানী সাংবাদিকদের জানান, হাদিস মিয়ার লোকজন জোর করে ঘরে ঢুকে আলমারী খুলে নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়ে গেছে। সঞ্জিত কুমার বলেন, হাদিস মিয়ার লোকজন আমার কাছে মেলার চাঁদা দাবী করে। চাঁদা না দেওয়ায় তারা আমার উপর হামলা চালানোর জন্য বাড়িতে আসে। ওদের ভয়ে আমি পাটাতনে গিয়ে পালিয়ে থাকি। এঘটনায় রোববার সালথা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছি। এবিষয়ে অভিযুক্ত হাদিস মিয়া বলেন, আমার বিরুদ্ধে অভিযোগটি মিথ্যা। আমি আপনাদের সাথে পরে কথা বলবো।

সালথা থানার অফিসার এস.আই মো. ই¯্রাফিল বলেন, সংখ্যালঘু পরিবারের উপর হামলার বিষয়টি ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পাওয়া যায়। এঘটনায় সঞ্জিত কুমার বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ করেছে।

স/জনী

         
print
Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন