ভুয়া ফেসবুক আইডি’র সন্ধানে নেমেছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। বাংলাদেশের লাখ লাখ আইডি ভুয়া অভিযোগে বন্ধ করে দিচ্ছে ফেসবুক। তবে, এর উল্লেখযোগ্য একটা অংশ ভুয়া না হলেও ফেসবুকের কর্তন নীতির আওতায় পড়েছে। সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন সূত্র জানায়, বাংলাদেশে ফেসবুক অ্যাকাউন্টের সংখ্যা প্রায় তিন কোটি। ফেসবুক ভুয়া আইডি বন্ধ করার সম্ভাব্য যে ৩ শতাংশ হারের কথা বলেছে তাতে ৯ লাখ অ্যাকাউন্ট বন্ধ হয়ে যাওয়ার কথা।

তবে, এই ৯ লাখের সবার আইডিই ভুয়া নয়। অনেকের আইডি আসল হওয়ার পরও ফেসবুক তা বন্ধ করে পর্যবেক্ষন চালাচ্ছে। ফেসবুক বলেছে, নিরাপত্তা ব্যবস্থা উন্নত করতে ভুয়া অ্যাকাউন্ট বন্ধ শুরু হয়েছে। একই ধরনের পোস্ট বারবার দেওয়া, একই লিংক বার বার শেয়ার করা, পর্নো ওয়েবসাইটের লিংক, ছবি ও ভিডিও শেয়ার ইত্যাদি বিষয়গুলো বিশ্লেষণ করে ভুয়া আইডিগুলো চিহ্নিত করে সেগুলো বন্ধ করা হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার ফেসবুকের পক্ষ থেকে জানানো হয়, নিরাপত্তা ব্যবস্থা উন্নত করতে ভুয়া অ্যাকাউন্টগুলো চিহ্নিত করে সেগুলো বন্ধ করে দেওয়া হবে। মূলত সাধারণ ব্যবহারকারীদের বিভ্রান্ত করতে ভুয়া অ্যাকাউন্টগুলো ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এর হাত থেকে মুক্তি দিতেই ফেসবুকের নতুন এই পদক্ষেপ।

এদিকে বাংলাদেশে ভুয়া পেজের তালিকায় বাদ পড়া আইডিগুলোর কারণে অনেকে ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের ফেসবুক পেইজের লাইক কমে গেছে। সেসব পেইজগুলো গড়ে ৩ শতাংশ হারে লাইক হারিয়েছে। সে হিসাবেও বন্ধ হয়ে যাওয়া আইডির সংখ্যা ৯ লাখ হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ফেসবুকের দাবি অনুযায়ী, ভুয়া আইডি বেশি এমন দেশগুলোর মধ্যে শীর্ষে আছে বাংলাদেশ।

উল্লেখ্য. গত বছর মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সময় ফেসবুকে ভুয়া খবর ছড়ানো হয় যার প্রভাব পড়েছিলো নির্বাচনে। এতে সমালোচনার মুখে পড়তে হয় প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী মার্ক জাকারবার্গকে।

আগামী মাসে জার্মানি এবং ফ্রান্সে নির্বাচন হওয়ার কথা রয়েছে। তাই এবার আগেই সতর্ক হচ্ছে ফেসবুক। ফ্রান্সে প্রায় ৩০ হাজারেরও বেশি ভুয়া অ্যাকাউন্ট এরইমধ্যে বন্ধ হয়ে গেছে বলে জানা গেছে।

স/এষ্

print
Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন

Power by

Download Free AZ | Free Wordpress Themes