মাহাবুব ইসলাম উজ্জ্বল, মাগুরা প্রতিনিধিঃ

‘যদি এক দেহেতে দুজনারি দিতো বিধি প্রান, যদি এক কবরে দুজন থাকার করিতো নিয়ম’এমন কাহিনির জন্ম হয়েছে মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার কানুটিয়া গ্রামে।মাগুরা জেলার মহম্মদপুরের বালিদিয়া ইউনিয়নের কানুটিয়া গ্রামের রবিউল ইসলাম (২৮) ও তার স্ত্রী খাদিজা (২৫) ঘরের ফ্যানের সাথে এক রশিতে ঝুলে আত্যহত্যার ঘটনা ঘটেছে।ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার রাতে।নিহত রবিউল বালিদিয়া ইউপি সদস্য হাবিব মেম্বারের ছেলে।

জানা গেছে, প্রতিদিনের ন্যায় ঘটনার রাতেও খাবার খেয়ে ঘুমাতে যায় রবিউল ও তার স্ত্রী। রাতের এমন কি অজ্ঞাত ঘটনায় ৩ বছরের কন্যা সন্তানকে রেখে মৃত্যুর পথ বেছে নেয় তা এখনো জানা যায়নি।তবে পারিবারিক কলহের জের বলে  প্রাথমিক ভাবে ধারনা করেছে প্রশাসন ও এলাকাবাসী।এ বিষয়ে মহম্মদপুর থানার ওসি মোঃ তরিকুল ইসলাম জানান, প্রাথমিক ভাবে পারিবারিক কলহের জেরে এমন ঘটনা ঘটতে পারে । তবে পোস্টমোর্টেম রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত সঠিক ভাবে কিছু বলা যাচ্ছেনা।বৃহস্পতিবার সকালে মাগুরা সরদ হাসপাতালের মর্গে লাশ পেরণ করা হয়েছ।

স/জনী

print
Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন