ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের সীমাখালি ব্রিজটি ২ বছর যাবৎ ভেঙে পড়ে আছে

বাঘারপাড়া (যশোর)  থেকে আজম খান : যশোরের বাঘারপাড়া ও মাগুরার শালিখা উপজেলার সীমান্তবর্তী ঢাকা- খুলনা মহাসড়কের সীমাখালি ব্রিজটি ২ বছরের বেশি সময় যাবৎ নদীর মধ্যে ভেঙ্গে পড়ে থাকলেও নতুন ব্রিজ তৈরি না হওয়ায় এবং ভাঙ্গা ব্রিজটি অপসারন না করায় নদীর পানি চলাচল বাধাপ্রাপ্ত হওয়ায় পরিবেশেরর বিঘ্ন ঘটছে। অন্যদিকে পাশের বেইলি ব্রীজ দুটিও নির্মাণ ত্রুটির কারণে স্থানীয়দের কাছে মরণ ফাঁদ হয়ে উঠেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ২০১৭ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি। সকাল ৮ টার দিকে ঢাকা-খুলনা সহাসড়কের এ ব্রিজটি দুটি ট্রাক সহ ধসে পড়ে। এতে ঢাকার সঙ্গে  বেনাপোল স্থলবন্দরসহ দক্ষিণাঞ্চলের অন্তত ১৩টি রুটের যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়। অল্পদিনের মধ্যে পাশাপাশি দুটি বেইলি ব্রিজ তৈরী করা হয়। কিন্তু সংকুচি বেইলী ব্রিজে দুটি বাস একসঙ্গে পার হওয়া বেশ দুঃসাধ্য। এ কারণে বেইলী ব্রিজ দুটি মরণ ফাঁদ হিসাবে পরিচিতি পেয়েছে।

পুরাতন ব্রিজটি তুলে সেখানে নতুন একটি ব্রিজ তৈরীর প্রকল্প ইতিমধ্যে ঢাকায় সড়ক বিভাগের প্রধান কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে বলে মাগুরা জেলার উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী অফিস সূত্রে জানা যায়।

স/এষ্

Print Friendly, PDF & Email