বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিন শাখার বিশেষ সভা ১৭/০৯/২০১৮ বিকেল ৪.০০ টায় অনুষ্ঠিত হয়। যুবজাগরন কাকরাইল শাখায়,অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিন এর সভাপতি যুববন্ধু ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট । সভা পরিচালনা করেন,ঢাকা মহানগর দক্ষিণ এর ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা ।

ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট তার বক্তব্যে মহানগরের নেতৃবৃন্দকে এই সংগঠনকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে,নৌকার জাগরন সৃষ্টি করার লক্ষ্যে এবং রাষ্টনায়ক শেখ হাসিনার উন্নয়ন কর্মকান্ড মানুষের মাঝে পৌছে দেয়ার জন্য করনীয় কার্যাবলির নির্দেশনা প্রদান করেন,এবং মহানগরের সকল নেতৃবিন্দকে এই মর্মে নির্দেশনা প্রদান করেন যে মহানগরের প্রতিটি নেতৃবিন্দকে সকল কর্মীদের সাথে যোগাযোগ বৃদ্ধি এবং সর্বপরী কর্মীবান্ধব হতে হবে ।

বিশেষ সভা শেষ হয় ৭ টার সময় তাই কৌতূহল বসত আসে পাশে সময় কাটাই দেখার জন্য আজ নৈশভোজ হয় কিনা হলে কেমন মানুষ ! ০৮ টা বাজাত না বাজতেই দেখি মানুষ আসতে শুরু করেছে এবং ০৯ টার মধ্যে কাকরাইল চৌরাসতা পার হয়ে গেছে মনে হলো আজকে লোক আরে বেশী হবে  , ভাবতে ভালই লাগছে।
গত তিন মাস ধরে প্রতিদিন রাতে যুবজাগরন কাকরাইল শাখার সম্মুখে অসংখ্য শ্রমজীবি খেটে খাওয়া মানুষ, রিকশাওয়ালা, যাযাবর, সর্বপরি সকল শ্রেনীপেশার দরিদ্র অসহায় মানুষের জন্য রাতের আহারের ব্যাবস্থা করেছেন ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট, এই মহান কাজের দরুন উক্ত অসহায় মানুষের মাঝে নৌকার প্রতি এবং ইসমাইল চৌধুরী সম্রাটের প্রতি আস্থা ও ভালোবাসার সৃষ্টি হয় ,তারা বিশ্বাস করেন যে, ইসমাইল চৌধুরী সম্রাটই হচ্ছেন নৌকার যোগ্য কান্ডারি এবং যোগ্য নেতা।

রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার যোগ্য কর্মি। শান্তিবাগে থাকে রিক্সা চালক রফিক প্রতি রাতে আহার করে এখানে। খাবার নওয়ার ফাকে বলল “সম্রাট ভাই এর লাহান মানুষ এমপি হওন দরকার।” মতিঝিলের ফুটপাতে থাকে রজিনা বেগম এসেছে তার ৬ বছরের মেয়ে নিয়ে। সে বলল ” মইয়ারে ফইত্যেক দিন মাংস দিয়া ভাত খাওয়ামু জীবনে চিন্তা করি নাই কিন্তু সম্রাট ভাই এর জন্য হেইডা হইছে, মাইয়াডা খুব খুসি, আল্লাহ সম্রাট ভাই এর লাহান মানুষ আমাগো দরকার”। প্রতিদিন যুবজাগরন- কাকরাইল শাখার সামনে এই রকম অভূতপূর্ব দৃশ্যের অবতারণা হয়।

স/এষ্

print

Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন