সামাজিক মর্যাদার কথা বিবেচনা করে রাওয়ালপিন্ডির আদিয়ালা জেলে বি-শ্রেণির সুবিধা দেয়া হয়েছে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ ও তার মেয়ে মরিয়ম নওয়াজকে। দুর্নীতির অভিযোগে অভিযুক্ত নওয়াজ ও তার মেয়ে শুক্রবার লন্ডন থেকে দেশে ফেরেন। এর পর পরই তাদেরকে বিমানবন্দর থেকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। পাকিস্তানি সূত্রকে উদ্ধৃত করে ভারতের অনলাইন জি নিউজ বলছে, পাকিস্তানের রাজনীতিতে এ দু’জন ভিভিআইপি কঠোর নিরাপত্তা বেষ্টিত আদিয়ালা জেলে প্রথম রাত কাটিয়েছেন। সেখানে তাদেরকে বি-শ্রেণীর সুবিধা দেয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে পাকিস্তান সরকারের সিনিয়র কর্মকর্তাদের উদ্ধৃত করা হয়েছে।

ওদিকে ইসলামাবাদ প্রশাসন থেকে একটি নোটিফিকেশন ইস্যু করা হয়েছে। তাতে তারা রাজধানী ইসলামাবাদে সিহালা পুলিশ প্রশিক্ষণ কলেজের একটি রেস্ট হাউজসে সাব জেল হিসেবে ঘোষণা করেছে। পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত তাদেরকে সেখানে রাখার কথা। অন্যদিকে সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে জিও নিউজ জানায়, কর্তৃপক্ষ পাকিস্তানের এই দুই ভিভিআইপিকে এখনকার মতো আদিয়ালা জেলে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

গতকালই ইসলামাবাদের একজন ম্যাজিস্ট্রেট ও সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তাদের উপস্থিতেতে একদল চিকিৎসক আদিয়ালা জেলের ভিতরে নওয়াজ ও মরিয়মের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করেছেন। তারা তাদেরকে সুস্থ বলে ঘোষণা দিয়েছেন। এখানে উল্লেখ্য, পাকিস্তানে এ এবং বি শ্রেণীভুক্ত বন্দিদের জন্য কোনো কঠোর শ্রম আরোপ করা হয় না। তবে অন্যদের শিক্ষিত করতে বা পড়াশোনা করানোর কাজ দেয়া হয় তাদেরকে। এক্ষেত্রে নওয়াজ ও মরিয়মের বেলায় ওই একই নিয়ম প্রয়োগ করা হবে কিনা তা স্পষ্ট নয়। দ্য নিউজ রিপোর্ট করেছে, বি শ্রেণীভুক্ত বন্দিদেরকে জেলখানায় একটি খাট, একটি চেয়ার, স্যানিটারি সামগ্রি ও অন্যান্য আনুষঙ্গিক জিনিসপত্র দেয়া হয়।

উল্লেখ্য, শুক্রবার নওয়াজ ও তার মেয়ে পাকিস্তানের লাহোরে অবতরণ করেন। এ সময় দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত হওয়ায় তাদেরকে গ্রেপ্তার করেন জাতীয় জবাবদিহিতা বিষয়ক ব্যুরো (এনএবি) –এর কর্মকর্তারা। নওয়াজ শরীফের স্ত্রী অসুস্থ। তিনি লন্ডনে চিকিৎসা নিচ্ছেন। তাকে দেখাশোনা করতে সেখানে গিয়েছিলেন নওয়াজ ও মেয়ে মরিয়ম। এ সময়ে তাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির দায়ে অভিযোগ গঠন করে শাস্তি ঘোষণা করা হয়।

এমএ

print
Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন