হারুন-অর-রশীদ,ফরিদপুর প্রতিনিধি

ধীরে ধীরে তাপমাত্রা বাড়লেও ফরিদপুরে কমছে না শীতের তীব্রতা। আকাশ হালকা মেঘলা থাকায় গত দু’দিন ধরে দুপুরের আগে সূর্যের মুখ দেখা যাচ্ছে দুপুরের পর থেকে। আবার সূর্যের দেখা মিললেও হিমালয় থেকে আসা উত্তরের হীম শীতল বাতাস অব্যাহত থাকার কারণে সূর্যের তাপ অনুভূত হচ্ছে না। রাতভর বৃষ্টির মত ভারী কুঁয়াশা ঝরার পর আজ শুক্রবার বেলা ১১টা পর্যন্ত মেঘের কোলে লুকিয়ে ছিল সূর্য।

কনকনে ঠান্ডা বাতাসের কারণে সূর্য দেখা যাওয়ার পরও ফরিদপুরে শীতার্ত মানুষরা আগুন জ্বেলে শীত নিবারণের চেষ্টা করেছে। সরকারিভাবে অপ্রতুল শীতবস্ত্রের কারণে শীতার্ত মানুষরা দৌঁড়াচ্ছে জনপ্রতিনিধিদের কাছে। ফরিদপুরের নগরকান্দার এহসান নামে এক ব্যক্তি জানান, সামনে মাসে পরীক্ষা থাকা সত্ত্বেও শীতের কারণে ঠিকমতো পড়ালেখা করতে পারছিনা।

এ দিকে প্রচন্ড শীতের কারণে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থী উপস্থিতি কমে গেছে আশংকাজনকভাবে। আর লেখাপড়ার জন্য প্রতিষ্ঠানে আসলেও শ্রেণির ভেতর কনকনে ঠান্ডা থাকায় শিক্ষার্থীদের মাঠে খেলাধুলা করতে দেখা গেছে। শৈত্যপ্রবাহ কেটে তাপমাত্রা সহনীয় পর্যায়ে না আসা পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে স্বাভাবিক উপস্থিতি হবে না বলে জানিয়েছেন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানরা।

 

স/এষ্

print

Facebook Comments

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন